1. bdweb24@gmail.com : admin :
  2. him@bdsoftinc.info : Staff Reporter : Staff Reporter
শুক্রবার, ২১ জুন ২০২৪, ১২:১৮ পূর্বাহ্ন
শিরোনামঃ
চাঁদপুরে একের পর এক বেরিয়ে আসছে ভয়ঙ্কর রাসেল ভাইপার, আতঙ্ক আফগানিস্তানের বিপক্ষে লড়াকু পুঁজি ভারতের দেশে আবিষ্কৃত ২৯টি গ্যাস ক্ষেত্রের মধ্যে ২০টি উৎপাদনরত রাশিয়ার দুটি জ্বালানি ডিপোতে ড্রোন হামলায় আগুন বেনজীর ও আছাদুজ্জামানের সম্পদ নিয়ে যা বললেন স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী শ্রমিকদের মৃত্যু নিয়ে প্রবাসীকল্যাণ প্রতিমন্ত্রী বললেন ‘হায়াত-মউত আল্লাহর হাতে’ শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানে শনিবারের ছুটি নিয়ে চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত চান্দিনায় স্বেচ্ছাসেবক লীগ নেতার ওপর হা-ম-লার প্র-তিবাদে মানববন্ধন শুল্ক ও বাড়তি কর বিদেশি বিনিয়োগে বড় বাধা: পলক মিয়ানমারকে জানিয়ে দেওয়া হয়েছে, আমরাও পাল্টা গুলি চালাবো: স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী

৩৮ স্ত্রী, ৮৯ সন্তান! মারা গেলেন বিশ্বের বৃহত্তম পরিবারের কর্তা

রিপোর্টার
  • আপডেট : সোমবার, ১৪ জুন, ২০২১
  • ১৭৩ বার দেখা হয়েছে

বঙ্গনিউজবিডি ডেস্ক: বিশ্বের বৃহত্তম পরিবারের প্রধান জিয়ানা চানা মারা গেছেন। ভরাতের মিজোরামের রাজধানী আইজলের নিকটবর্তী বকতাওয়ং গ্রামের বাসিন্দা ৭৬ বছর বয়সী জিয়ানা চানার মৃত্যুতে শোকের ছায়া নেমে এসেছে বিভিন্ন মহলে। মিজোরামের মুখ্যমন্ত্রী জোরামথাঙ্গা তার মৃত্যুতে টুইট বার্তায় শোক জানিয়েছেন।

জোরামথাঙ্গা টুইট বার্তায় বলেন, মিজোরামের জিয়ানা চানা (৭৬) কে অশ্রু চোখে বিদায় জানিয়েছেন, তিনি ৩৮ জন স্ত্রী ও ৮৯ শিশুকে নিয়ে বিশ্বের বৃহত্তম পরিবারের প্রধান হিসাবে রেকর্ড গড়েন। মিজোরাম ও বকতাওয়ং তালাঙ্গনুমে তার পরিবারের কারণে এই রাজ্যে একটি বড় পর্যটকদের আকর্ষণে পরিণত হয়েছিল।

কীভাবে থাকতেন তিনি?
মিজোরামের বকতাওয়ং গ্রামের বাসিন্দা জিয়ানা চানা ছোট্ট-ছোট্ট ১০০টি ঘরে ৩৮ জন স্ত্রী, ৮৯ জন শিশু, ১৪ পুত্রবধূ এবং ৩৩ নাতি-নাতনিদের সাথে থাকতেন, তার পরিবারের কারণে এই রাজ্যে একটি বড় পর্যটকদের আকর্ষণে পরিণত হয়েছিল। জিওনার পরিবারের মহিলারাও কৃষিকাজ করেন। জিওনা ছানা পেশায় ছুতার ছিলেন।

একদিনের জন্য কতটা খবার লাগতো?
জিয়ানা চানার পরিবারের ব্যয়ও যে কোনও সাধারণ পরিবারের চেয়ে বেশি। একটি সাধারণ পরিবারে যতটা রেশন ২-৩ মাস ধরে লাগে, এই পরিবারের প্রতিদিন ততটা রেশন প্রয়োজন। দিনে ৪৫ কেজি চাল, ৩০-৪০টি মুরগি, ২৫ কেজি ডাল, কয়েক ডজন ডিম, ৬০ কেজি শাকসবজি প্রয়োজন হতো। পরিবারে প্রতিদিন প্রায় ২০ কেজি ফলও প্রয়োজন হত।

Please Share This Post in Your Social Media

এই বিভাগের আরো সংবাদ

© ২০২৩ bongonewsbd24.com